স্মার্টফোন থেকে সহজেই স্ক্যান করুন Office Lens অ্যাপ দিয়ে

0
505
Microsoft Office Lens Logo

প্রাত্যহিক জীবনে আমাদের কত কিছু স্ক্যান করার দরকার পড়ে। অনেক কিছু স্ক্যান করে অন্যকে পাঠানোর দরকার পড়ে, আমরা সেটি অতি সহজ ভাবে মোবাইল ক্যামেরাতে ছবি তুলে, কখনও ইমেলে, কখনো হোয়াটসঅ্যাপে অথবা অন্য কোনো মাধ্যমে পাঠিয়ে থাকি, এক্ষেত্রে অসুবিধা হলো ছবিটি বিকৃত হয়ে থাকে, বিষয়টি তির্যক হয়ে যায় এবং বিষয়বস্তু ছাড়াও অতিরিক্ত অপ্রয়োজনীয় অংশগুলিও থেকে যায়। বর্তমানে আমরা মোবাইল স্ক্যানিং অ্যাপস ব্যবহার করে খুব সহজেই মোবাইল ডিভাইস থেকে স্ক্যান করতে পারি। আমরা অনেকেই হয়তো এই পদ্ধতিটি জানি বা অনেক ইতিমধ্যেই বিভিন্ন ধরণের মোবাইল স্ক্যানিং অ্যাপ ব্যবহার করছি কিন্তু এই পোস্টে আমি আপনাদের সঙ্গে একটি অভিনব মোবাইল স্ক্যানিং অ্যাপ সম্পর্কে বলব যেটি ব্যবহার করার জন্য কোন চার্জ দিতে হয় না, একদম ফ্রি! এবং এটি একটি নামী সফটওয়্যার প্রস্তুতকারক সংস্থা দ্বারা তৈরি, আর এই অ্যাপ চলার সময় কোন বিজ্ঞাপন থাকে না। এই পোস্টে আমরা এইরকম একটি উপযোগী মোবাইল অ্যাপ নিয়ে আলোচনা করবো। আসুন বিস্তারিত জেনে নেওয়া যাক।

তাহলে এবার অ্যাপটির পরিচয় দেওয়া যাক, এটি হলো মাইক্রোসফট এর তৈরি Office Lens অ্যাপ। “অফিস লেন্স” অ্যাপ ব্যবহার করে আপনি আপনার স্মার্টফোনটিকে একটি পকেট স্ক্যানারে পরিণত করতে পারবেন। এই অ্যাপ গুগল প্লে স্টোর, মাইক্রোসফট স্টোর ও অ্যাপল স্টোরে উপলদ্ধ।

অফিস লেন্স অ্যাপ ব্যবহার করার কিছু সুবিধা :-

  • ছবি তোলার জন্য বিভিন্ন মোড রয়েছে এই অ্যাপে যেমন ওয়াইট বোর্ড/ব্ল্যাক বোর্ড, ডকুমেন্ট, ফটো, ভিজিটিং কার্ড, যখন যেমন প্রয়োজন সেই মোডে ক্যাপচার নিতে পারবেন।
  • যেকোনো দিক থেকে ক্যাপচার করুন। ক্যাপচার করার পরে এই অ্যাপ নিজে থেকেই কিছু সম্পাদনা করে যেমন কর্প করে, ট্যারা বাঁকা ছবি সোজা করে, ব্রাইটনেস/কালার কারেকশন ইত্যাদি। যদি অটোমেটিক অ্যাডজাস্টমেন্ট আশানুরূপ না হয় তাহলে আপনি নিজেও এডিট করতে পারবেন। ক্যাপচার করা ডকুমেন্টে বিভিন্ন রঙের অ্যানোটেশন যোগ করতে পারবেন।
  • স্ক্যান করার পর ফোনে সেভ করে রাখা যায় এবং খুব সহজেই শেয়ার করা যায়। আপনি চাইলে আপনার মোবাইল ডিভাইসে গ্যালারিতে সেভ করে রাখতে পারেন অথবা মাইক্রোসফট অফিসের বিভিন্ন অ্যাপস-এ সংযোজন করতে পারেন। আবার সরাসরি পিডিএফ ফাইল ও বানিয়ে নিতে পারেন। এ ছাড়াও আপনি চাইলে মাইক্রোসফট এর নিজস্ব ক্লাউড স্টোরেজ পরিষেবা “ওয়ান ড্রাইভ” এ স্টোর করে রাখতে পারেন।
  • তিনটি ডট যুক্ত আইকনে ক্লিক করে সেটিংসে যেতে পারবেন, এখানেই রেসলিউশন (কোয়ালিটি ) এডজাস্ট করতে পারবেন।

অফিস লেন্স সম্পর্কে আরো ভালো করে বুঝতে নিচের ভিডিও দেখুন :-

আপনার ফোনের অপারেটিং সিস্টেম (Android, iOS, Windows) অনুযায়ী অ্যাপ স্টোরে গিয়ে এবার অ্যাপটি ইনস্টল করে নিন। আর দক্ষতার সঙ্গে স্ক্যান করতে থাকুন।

এই পোস্ট ভালো লেগে থাকলে, ডিজিটাল বাঙালিকে ধন্যবাদ দিতে পোস্টটি বন্ধুদের সঙ্গে শেয়ার করুন। ভালো থাকবেন! ধন্যবাদ! পরের পোস্টে দেখা হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here